সিরিয়ায় সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে নতুন ধরণের বোমা ব্যবহার করেছে রাশিয়া!

টাইমস আই বেঙ্গলী ডটকম, ঢাকা: সিরিয়ায় তাকফিরি সন্ত্রাসীগোষ্ঠী দায়েশের বিরুদ্ধে রাশিয়া নতুন ধরণের বোমা ফেলেছে বলে একটি খবরে দাবি করা হয়েছে। আরবি ওয়েবসাইট আল মাসদার নিউজের খবরে এ দাবি করা হয়েছে। খবরে বলা হয়েছে সিরিয়ার হামা প্রদেশের চার শহরে এ বোমা ফেলা হয়। হামলায় রুশ পাঁচ যুদ্ধবিমান এবং দুই হেলিকপ্টার অংশ নিয়েছিল। হামার যে চার শহরে বোমা ফেলা হয় সে গুলো হলো সৌরান, তাইবাত আল-ইমাম, হালফইয়া এবং লাতামানিয়া। বোমার বিস্ফোরণ আশেপাশের অনেকদূর এলাকা নিয়ে মাটি কেঁপে উঠেছে। এ ছাড়া, ভিডিও ফুটেছে, বিস্ফোরণের পরই আগুন ও ধোঁয়ার বিশাল মেঘকুণ্ডলি উঠতে দেখা গেছে। এ বোমা তাকফিরি সন্ত্রাসীগোষ্ঠী দায়েশের বিরুদ্ধে ব্যবহার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে আল মাসদার নিউজ। এ গোষ্ঠীটি আইএসআইএল বা আইএস নামেও পরিচিত।
আফগানিস্তানে আমেরিকা ‘মোয়্যাব’ বা এমওএবি নামে পরিচিত ‘সব বোমার জননী’ ফেলার পরই সিরিয়ার সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে নতুন বোমা ব্যবহার করার দাবি করা হয়েছে। অবশ্য এ বিষয়ে এখনো কিছু বলেনি রাশিয়া। আফগানিস্তানে দায়েশ অবস্থানের বিরুদ্ধে মোয়্যাব ব্যবহারের দাবি করেছে আমেরিকা। কিন্তু কোনো কোনো মার্কিন সংবাদ মাধ্যম মনে করছে, মূলত রাশিয়াকে নিজ শক্তি দেখানোর জন্য এ বোমা ব্যবহার করেছে আমেরিকা। কিন্তু রাশিয়ার কাছে ফোয়্যাব বা এফওএবি অর্থাৎ ‘সব বোমার পিতা’ নামে পরিচিত বোমা রয়েছে। এটি মার্কিন মোয়্যাবের চেয়ে ৪ গুণ বেশি শক্তিশালী হওয়ায় মার্কিন এ কৌশল তেমন কার্যকরি হয়নি বলেই মনে করছে মার্কিন সংবাদ মাধ্যম।

সূত্র: পার্সটুডে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *