আইসিবিএম বিরোধী প্রতিরক্ষা ব্যবস্থার পরীক্ষা চালাল আমেরিকা

টাইমস আই বেঙ্গলী ডটকম, ঢাকা: ২০১৬ সালে এই ব্যবস্থার একটি রকেট শূন্যে ছুঁড়েছিল আমেরিকা; তবে এবারই প্রথম এটি দিয়ে নকল আইসিবিএম বিধ্বস্ত করা হলো
উত্তর কোরিয়ার ভয়ে আমেরিকা প্রথমবারের মতো আন্তঃমহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্র বা আইসিবিএম বিরোধী ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থার পরীক্ষা চালিয়েছে। মার্কিন কর্মকর্তারা এ পরীক্ষা সফল হওয়ার দাবি করেছেন।

আমেরিকার মিসাইল ডিফেন্স এজেন্সি (এমডিএ) বলেছে, ক্যালিফোর্নিয়ার বিমান ঘাঁটি থেকে এই ব্যবস্থার একটি রকেট নকল একটি আন্তঃমহাদেশীয় ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রকে লক্ষ্য করে নিক্ষেপ করা হয় এবং সেটিকে ভূপাতিত করে।

চলতি বছর উত্তর কোরিয়া তার নবম ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করার পর মার্কিন সরকার আইসিবিএম বিরোধী ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থার পরীক্ষা চালাল। পিয়ংইয়ং ক্ষেপণাস্ত্রের সাহায্যে আমেরিকার মূল ভূখণ্ডে পরমাণু অস্ত্রের আঘাত হানতে পারে বলে ওয়াশিংটন উদ্বিগ্ন এবং সে ধরনের হামলা প্রতিহত করার মহড়া চালাতেই এ পরীক্ষা চালানো হয়েছে বলে পর্যবেক্ষকরা মনে করছেন।

আমেরিকা অবশ্য এই প্রথম আন্তঃমহাদেশী ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র (আইসিবিএম) বিরোধী প্রতিরক্ষা ব্যবস্থার পরীক্ষা চালাল। এমডিএ বলেছে, ক্যালিফোর্নিয়ার ভ্যানডেনবার্গ বিমান ঘাঁটি থেকে এই ব্যবস্থা নিক্ষেপ করা হয় এবং এটি মার্শাল দ্বীপ থেকে ছোঁড়া নকল আইসিবিএমটিকে বিধ্বস্ত করে প্রশান্ত মহাসাগরে পতিত হয়।

উত্তর কোরিয়া মাত্র কয়েকদিন আগে তার সর্বশেষ ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালায় যেটি ৪৫০ কিলোমিটার পথ পাড়ি দিয়ে জাপান সাগরে গিয়ে পড়ে। জাপান ও দক্ষিণ কোরিয়ার পাশাপাশি মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এ পরীক্ষার নিন্দা জানিয়েছেন। ট্রাম্প সোমবার এক টুইটার বার্তায় লিখেছেন, “উত্তর কোরিয়া তার প্রতিবেশী ‘চীনের প্রতি চরম অবজ্ঞা’ প্রদর্শন করে আরেকটি ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে।”

উত্তর কোরিয়া জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের পক্ষ থেকে আরোপিত নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে সাম্প্রতিক মাসগুলোতে নিজের পরমাণু অস্ত্র ও ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা তীব্রতর করেছে। #

সূত্র: পার্সটুডে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *