‘জনদুর্ভোগ থেকে দৃষ্টি সরাতেই মওদুদের বাড়ি ভাঙা হচ্ছে’

টাইমস আই বেঙ্গলী ডটকম, ঢাকা: জনদুর্ভোগ থেকে মানুষের দৃষ্টি সরাতেই মওদুদ আহমদের গুলশানস্থ বাড়িটি বেআইনীভাবে ভেঙে গুড়িয়ে দেয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। রবিবার দুপুরে নয়া পল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।তিনি বলেন, ‘বিএনপি নেতা মওদুদ আহমদের গুলশানস্থ বাড়িটির ওপর উচ্চ আদালতে রিট পিটিশন দাখিল ও নিম্ন আদালতে মামলা দায়ের থাকা সত্বেও অন্যায়ভাবে বাড়িটি ভাঙা শুরু হয়েছে। যা সম্পূর্ণ বেআইনী। আদালতের নির্দেশনা ব্যতিরেকেই সরকার বাড়িটি ভাঙা শুরু করেছে। তাছাড়া এই সরকার যে আইনের পরোয়া করে না এবং আইনের ওপর শ্রদ্ধাশীল নয় তা আবারো প্রমাণিত হলো।’ঈদে মানুষের স্বপ্নের বাড়ি ফেরা করুণ কান্নায় পরিণত হওয়ার মধ্য দিয়ে ফুটে উঠেছে সরকারের মিথ্যা উন্নয়নের ফানুস এমনটা মন্তব্য করে তিনি বলেন, ‘ঈদের প্রাক্কালে এতো বিভৎস দুর্ভোগ এর আগে আর কখনো আসেনি। মানুষ জীবনের ঝুঁকি নিয়ে গন্তব্যে রওনা হচ্ছে। সড়ক দুর্ঘটনায় অনেকের পরিবারে নেমে এসেছে শোকের ছায়া। আর তাই সরকারের ব্যর্থতার দিকে যাতে মানুষের চোখ না পড়ে সেজন্য মওদুদ আহমদের গুলশানস্থ বাড়িটি বেআইনীভাবে ভেঙে গুড়িয়ে দেয়া হচ্ছে। আমি বিএনপির পক্ষ থেকে এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।’এ সময় যোগাযোগমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের পদত্যাগ দাবি করেন রুহুল কবির রিজভী।শেখ হাসিনার অধীনে বিএনপি নির্বাচনে অংশ নেবে অন্যথায় মুসলিম লীগে পরিণত হবে বলে আওয়ামী লীগ নেতাদের এমন বক্তব্যের কঠোর সমালোচনা করে বিএনপির এ নেতা বলেন, ‘আওয়ামী লীগ বিরোধীদলে থাকলে ক্ষমতায় যেতে নানান মিথ্যা প্রতিশ্রুতি ও ভণ্ডামীর আশ্রয় নেয়। ঠিক তেমনটাই ক্ষমতায় এসেও করে থাকে।’
আমি স্পষ্ট করে বলছি-‘বিএনপি ও দেশের সাধারণ মানুষ দুঃশাসনের প্রধান (শেখ হাসিনার) পদত্যাগ নিশ্চিত করেই নির্বাচনে অংশ নেবে। শুধু তাই নয়, বিএনপি নির্বাচনের জন্য সব সময় প্রস্তুত। এর জন্য আলাদা কোনো প্রস্তুতির প্রয়োজন পড়ে না। তবে সেই নির্বাচন হতে হবে নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে অবাধ সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন।’সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন- বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, হাবিবুল ইসলাম হাবিব, আব্দুস সালাম আজাদ, কাজী আবুল বাশার, মো. মুনির হোসেন, আমিনুল ইসলাম প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *