জাকির নায়েকের পাসপোর্ট বাতিল করতে যাচ্ছে ভারত

টাইমস আই বেঙ্গলী ডটকম, নয়াদিল্লি থেকে: ভারতীয় পাসপোর্ট বিভাগ থেকে জানানো হয়েছে, ২০১৬ সালে ঢাকায় ‘হলি আর্টিজান ক্যাফে’ হামলায় জাকিরের বিরুদ্ধে অভিযোগ থাকায়, তার পাসপোর্ট কেনো বাতিল করা হবে না-এ মর্মে একটি কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া হয়। গেলো সপ্তাহে ইস্যুকৃত ওই নোটিশে আরো বলা হয়, আসছে ১৩ জুলাইয়ের মধ্যে ৫১ বছরের জাকির নায়েককে এর কারণ দর্শাতে হবে। অন্যথায় তার পাসপোর্টসহ অন্যান্য ভ্রমণ সংক্রান্ত কাগজপত্র অবৈধ ঘোষণা করা হবে। ভারতীয় কর্মকর্তাদের বরাতে জানা গেছে, সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডে মদদদান ও অর্থ কেলেঙ্কারির ঘটনায় জাকিরের বিরুদ্ধে তদন্ত চালাচ্ছে ভারতীয় গোয়েন্দা সংস্থা (এনআইএ)। এছাড়া ঢাকার গুলশানে হলি আর্টিজানে নিহত জঙ্গিদের কয়েকজন জাকির নায়েকের বক্তব্যে অনুপ্রাণিত হয়েছিলেন বলে অভিযোগ রয়েছে।গুলশান হামলার পর জাকির নায়েকের কার্যকলাপ নজরদারিতে আনা হয়। এর পরপরই ২০১৬ সালে ১ জুলাই তিনি ভারত ছেড়ে সৌদি আরবে আশ্রয় নেন এবং পরবর্তীতে সেদেশের নাগরিকত্ব নিয়ে বসবাস শুরু করেন।ধারণা করা হচ্ছিল, জাকির নায়েক গ্রেপ্তার এড়াতে সৌদি আরবে অবস্থান করছেন। গেলো বছরের নভেম্বরে এনআইএ জাকির নায়েক ও তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে মামলা করে। এছাড়া তার প্রতিষ্ঠিত ইসলামিক রিসার্চ ফাউন্ডেশন (আইআরএফ) নিষিদ্ধ করা হয়।জাকির নায়েকের বিরুদ্ধে বিভিন্ন গোষ্ঠীর মধ্যে ধর্ম নিয়ে বিদ্বেষ ছড়ানো এবং সম্প্রীতি নষ্ট করার অভিযোগ তোলা হয়েছে। ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার তার প্রতিষ্ঠিত আইআরএফকে অবৈধ প্রতিষ্ঠান হিসেবে ঘোষণা করে।আইআরএফের প্রেসিডেন্ট ও এর সদস্যরা ‘অবৈধ কার্যকলাপকে’ প্রশ্রয় দিচ্ছেন উল্লেখ করে দিল্লি হাইকোর্ট সম্প্রতি প্রতিষ্ঠানকে নিষিদ্ধ ঘোষণার সিদ্ধান্ত বহাল রেখেছেন। জাকির নায়েকের বক্তব্যের কারণে আইআরএফকে যুক্তরাজ্য ও কানাডায় নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এ ছাড়া মালয়েশিয়ায় নিষিদ্ধ ১৬ চিন্তাবিদের একজন জাকির নায়েক।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *