রাম রহিমের ৩০ হাজার ভক্তকে সরিয়ে দেওয়া হলো

টাইমস আই বেঙ্গলী ডটকম, আন্তর্জাতিক ডেস্ক: স্বঘোষিত ধর্মগুরু গুরমিত রাম রহিম সিংয়ের ঘাঁটি থেকে ৩০ হাজার ভক্ত বের করে দেওয়া হয়েছে। আজ রোববার ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম এনডিটিভি এ খবর প্রকাশ করেছে।দুই নারী ভক্তকে ধর্ষণের দায়ে গত শুক্রবার হরিয়ানার হাইকোর্টে দোষী সাব্যস্ত হন রাম রহিম। আগামীকাল সোমবার এ বিষয়ে রায় হওয়ার কথা রয়েছে।হরিয়ানার সিরসায় ‘ধর্মগুরু’র সংগঠন ডেরা সাচ্চা সৌদার সদর দপ্তর ঘিরে কড়া নজর রাখছেন নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা।রাম রহিম দোষী সাব্যস্ত হওয়ার পর থেকেই দিল্লিসহ অন্য শহরগুলোয় দ্রুত সহিংসতা ছড়িয়ে পড়ে।
আজ সন্ধ্যা ৬টার দিকে ১০০টি বাসে করে ভক্তদের আশ্রমের বাইরে বের করে দেওয়া হয়। আগামীকাল সোমবার রাম রহিম সিংয়ের সাজা ঘোষণা করতে হরিয়ানা রাজ্যের রোহতাক কারাগারে যাবেন ভারতের সিবিআইয়ের বিশেষ আদালতের বিচারপতি জগদীপ সিং। আগামীকাল সোমবার দুই সহকারীকে নিয়ে কারাগারে হেলিকপ্টারে যাবেন তিনি।
হারিয়ানার একজন সিনিয়র পুলিশ কর্মকর্তা জানিয়েছেন, রোহতাক ও সিরসা এই দুই শহরে কারফিউ জারি রয়েছে। রায় ঘোষণা দেওয়ার সময় কঠোর ব্যবস্থা নিয়েছে প্রশাসন।
পুলিশ জানিয়েছে, তাদের বিশেষ তদন্ত দল সহিংসতায় জড়িত সন্দেহ ডেরা সাচ্চা সৌদাতে তদন্ত করছে। হারিয়ানা ও পাঞ্জাবের ১৩০টি আশ্রমে এ তল্লাশি চালিয়ে রড, পেট্রোল বোমা বানানোর সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে। এ সময় সিরসা ঘাঁটির কাছে একটি গাড়ি থেকে দুটি একে-৪৭ এবং একটি পিস্তল উদ্ধার করা হয়।
বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, রাম রহিম সিং দোষী সাব্যস্ত হওয়ার পর ভারতের বিভিন্ন শহরে সহিংসতায় হরিয়ানা রাজ্যের পঞ্চকুলা শহরে নিহত হয়েছে ৩৮ জন। আহত হয়েছে ৫০০ জনেরও বেশি। হাইকোর্ট হরিয়ানা রাজ্য সরকারের উদ্দেশে বলেন, ‘আপানারা রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে পঞ্চকুলায় আগুন লাগাতে দিচ্ছেন।’মাসিক রেডিও ভাষণে রবিবার ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেছেন, মতবাদের নামে দেশে সহিংসতা গ্রহণযোগ্য নয়। যারা নিজেদের হাতে আইন তুলে নেয় অথবা সহিংসতা ছড়ায় তাদের ছাড় দেওয়া হবে না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *